বৃহস্পতিবার, ০৮ ডিসেম্বর ২০২২, ০৭:৪৮ অপরাহ্ন
পরীক্ষামূলক সম্প্রচার:

লড়াই চালিয়ে যেতে হবে বগুড়ায় জেলা বিএনপির সম্মেলনে মির্জা ফখরুল

  • আপডেট টাইম : বুধবার, ২ নভেম্বর, ২০২২
  • ২৩ দেখা হয়েছে

বাংলা হেডলাইনস বগুড়া প্রতিনিধি: বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, নিশিরাতে অবৈধ ভোটের সরকার বলে বিএনপির অবস্থা হেফাজতের ইসলামীর মত হবে। তারা এ মন্তব্য করে স্বীকার করেছে, ওই রাতে অসংখ্যা মানুষ হত্যা করেছিল।

তিনি বলেন, তারেক রহমান ও তার স্ত্রী জোবাইদা রহমানের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলার ওয়ারেন্ট ইস্যু করে কোন লাভ নেই। কারণ তারা এসব মামলায় ভয় পাননা। সরকারের দুর্নীতির বিরুদ্ধে আমাদের দুর্বার লড়াই চালিয়ে যেতে হবে। আর এ লড়াই খালেদা জিয়া ও তারেক রহমানের জন্য নয়; এটা সকল দেশবাসীর জন্য।

মির্জা ফখরুল বুধবার দুপুরে বগুড়া শহরের শহীদ টিটু মিলনায়তনে জেলা বিএনপির দ্বি- বার্ষিক সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।

মির্জা ফখরুল বলেন, অবৈধ সরকার দেশের অর্থনীতিকে ধ্বংস করেছে। ঘুষ ছাড়া কোথাও কোন কাজ হয়না। আওয়ামী লীগের কাছে মানুষের কোন সম্মান নেই। লুট করে বিদেশে টাকা পাচার করে দেশকে ভাগাড়ে পরিণত করেছে। এখন প্রধানমন্ত্রী নিজেই বলছেন, দেশে দূর্ভিক্ষের পদধ্বনির কথা।

বিএনপি দেশে গণতন্ত্রের জন্য লড়াই করছে এমন দাবি করে মির্জা ফখরুল বলেন, দেশে এখন আর কোন নির্বাচন নিয়ে খেলা হবেনা। আওয়ামী লীগ সরকারকে পদত্যাগ ও সংসদ বিলুপ্ত করতে হবে। অন্ত:বর্তীকালীন  তত্ত্বাবধায়ক সরকারের হাতে ক্ষমতা দিতে হবে। গঠিত নতুন নির্বাচন কমিশনের অধিনে নির্বাচন হবে।

তিনি বলেন, আমরা অধিকার আদায়ের সংগ্রামে পাঁচ নেতাকে হারিয়েছি। ৬০০ জনের বেশি নেতাকর্মীকে গুম করা হয়েছে। আরো অনেককে হত্যা করা হয়েছে। মিথ্যা মামলায় খালেদা জিয়াকে গৃহবন্ধী ও তারেক রহমানকে নির্বাসিত করা হয়েছে। তাই আমরা গণতন্ত্রের জন্য লড়াই করছি। এ লড়াই শেষ লড়াই। এ লড়াই শুধু দেশ ও জাতিকে রক্ষার জন্য।

ফখরুল অভিযোগ করেন, ফ্যাসিস্ট আওয়ামী লীগ সরকার লুটপাট ও পাচার করে দেশের অর্থনীতিকে ধ্বংস করেছে। তারা রিজার্ভ খেয়ে ফেলেছে। আমদানী করার ডলার নেই। প্রবাসীরাও মুখ ফিরিয়ে নিচ্ছেন। তারা এখন হুন্ডির মাধ্যমে অন্য দেশে রেমিট্যান্স পাঠাচ্ছে; তাই রিজার্ভ কমে গেছে।

বগুড়া জেলা বিএনপির ও সম্মেলনের আহবায়ক একেএম সাইফুল ইসলামের সভাপতিত্বে সম্মেলন উদ্বোধন করেন, বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ইকবাল হাসান মাহমুদ টুকু।

বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন, বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা একেএম মাহবুবর রহমান, সাবেক এমপি হেলালুজ্জামান তালুকদার লালু, রাজশাহী বিভাগীয় সহ- সাংগঠনিক সম্পাদক এএইচএম ওবায়দুর রহমান চন্দন, বগুড়া সদরের এমপি গোলাম মোহাম্মদ সিরাজ, মোশারফ হোসেন এমপি, মাফতুন আহমেদ খান রুবেল, লাভলী রহমান, আবদুল ওয়াদুদ, নূরে আজম বাবু প্রমুখ।

সঞ্চালনায় ছিলেন, বিএনপি নেতা মীর শাহে আলম, একেএম তৌহিদুল আলম মামুন ও একেএম আহসানুল তৈয়ব জাকির।

বিকালে দ্বিতীয় পর্বে গোপন ব্যালটের মাধ্যমে ভোটগ্রহণ শুরু হয়। সভাপতি পদে তিনজন, সাধারণ সম্পাদক পদে দু’জন ও সাংগঠনিক সম্পাদকের তিন পদে ১১ জন প্রতিদ্বদ্বিতা করছেন।

ফেসবুকের মাধ্যমে আমাদের মতামত জানাতে পারেন।

খবরটি শেয়ার করুন..

এই বিভাগের আরো সংবাদ
Banglaheadlines.com is one of the leading Bangla news portals, Get the latest news, breaking news, daily news, online news in Bangladesh & worldwide.
Designed & Developed By Banglaheadlines.com